২ সেপ্টেম্বর, ২০১০

সুগন্ধে মৌ মৌ চারিধার

লেখার আগেই শিরোনাম দিয়ে বসলাম। সচরাচর এই কাজটা আমি করিনা, তবু আজকে করলাম। হয়ে গেলো। আসলে আমি আপাতত কোন ফুল বাগিচায় বসে নেই। আহারে, ফুল বাগিচা শব্দটা লিখতেই একটা গানের কথা মনে পড়ে গেলো-- "যত ফুল ফুটে, ফুল বাগিচায়... তারা সবাই তো নয় গোলাপ ফুল"...

যাক গে, সুগন্ধে মৌ মৌ চারিধার--- এই কথাগুলো মনে হয় কোন একটা বিজ্ঞাপনে শুনেছিলাম। আমি আসলে কোন পারফিউমের দোকানেও নাই। তাহলে সুগন্ধ কীসের?? এই প্রশ্ন আসাটাই অতীব স্বাভাবিক। একটু পরে বলি?


আমার চারপাশের মানুষগুলোর মাঝে বেশিরভাগই জীবন নিয়ে অস্থির। অর্থাৎ তারা কী করছেন সেটাই তারা ঠিকমতন বলতে পারেন না। বেশিরভাগেরই জীবনে "ক্যারিয়ার" নিয়ে লক্ষ্য থাকলেও, জীবনের আত্মিক অংশ নিয়ে মাথাব্যথা নাই। হয়ত দরকারই নাই। দিনের মাঝে বেশিরভাগ সময়েই তাই যখন অনেকের সাথে কথা হয়-- মনে হয় আমার এইটা নাই, ঐটা নাই। জগতে আসলে সংযমী মানুষ নাই। টাকা ছাড়া উপায় নাই, নারী ছাড়া উপায় নাই। গার্লফ্রেন্ড না থাকলে জীবন বৃথা! বড্ড অস্থির লাগে। বুকটা কেমন যেন ফাঁকা ফাঁকা লাগে সহসাই।

তখনই ফেসবুকে স্ট্যাটাস মারি
-- "মন খারাপ, কিসসু ভাল্লাগেনা"।
-- "মেজাজ ভালো না"
-- "জীবনের কোন অর্থ আছে? ফালতু লাইফ"

তারপর আবারো প্রতিদিনের জীবন। দৈনন্দিন গতানুগতিক জীবন। এরই মাঝে অনেক সময় আমরা কিছু অন্যরকম মানুষের সাথে হয়ত মিলিত হই-- যারা জীবনকে অন্যের জন্য বিলিয়ে দেন। যারা অবহেলিত মানুষের জন্য নিজের যা কিছু আছে তা বিলিয়ে দিতে প্রস্তুত থাকেন, যারা মানুষের জন্য, যারা অভাবীদের জন্য...

ইন্টারনেটে বসে, আয়েশি ভঙ্গিতে মানবতার কথা বলে জীবনের "অস্বস্তি আর অস্থিরতাকে" কিছুতেই এড়িয়ে যাওয়া সম্ভব না। কিন্তু যখন অমনি কিছু উদার হৃদয় মানুষের সান্নিধ্য পাই সহসাই-- তখন যেন মনে হয় একটা বাগানে বসে আছি-- এই বাগানের সেরা সুগন্ধময় ফুলটির পাশে বসে আছি। মনে হয় যেন সেই সুগন্ধে চারিধার মৌ মৌ করছে।

এই সুগন্ধ মানবতার, এই সুগন্ধ ভালোবাসার, এই সুগন্ধ নিজেকে বিলিয়ে দেয়ার। ঘরে বসে এই সুগন্ধ ছড়িয়ে দেয়া তো দূরে থাক, পাওয়াও দুষ্কর। তাই কারো যদি জীবনকে দুর্গন্ধময় বস্তুর আশেপাশে বসবাস করা বলে মনে হয়-- চলে যান অমন কিছু "গোলাপের সান্নিধ্যে"। তাদের কাছে শিখে নিন জীবনকে কীভাবে দেখতে হয়।

আত্মায় শীতল প্রশান্তির স্রোত কে না চায়!!
শুভরাত্রি!!

কোন মন্তব্য নেই:

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

আপনার মূল্যবান মতামত জানিয়ে যান লেখককে